দুই বোনকে গণধর্ষণ করে ভিডিও প্রকাশ, মামলা দায়ের

Rape logo 1
Share Button

জেলার চরভদ্রাসন উপজেলায় দুই বোনকে পালাক্রমে ধর্ষণ ও ভিডিওচিত্র ইন্টারনেটে প্রকাশের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে।

মামলার পরপরই রোববার দুপুরে চরভদ্রাসন থানার ওসি রামপ্রসাদ ভক্ত ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লম্পট যুবকদের বাড়িসহ অন্যান্য স্থানে খুঁজেছেন। তবে ধর্ষকরা গা ঢাকা দিয়েছে বলে জানিয়েছে গ্রামের অনেকে।

এদিকে মামলা রুজুর পর কিশোরীদের ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

চরভদ্রাসন থানার বারান্দায় দাড়িয়ে ধর্ষিত কিশোরীদ্বয় বলেন, ‘আমাদের এখন পৃথিবীতে বেঁচে থাকাই বৃথা মনে হচ্ছে, ধর্ষকদের কঠোর শাস্তি হলেই একটু সান্তনা পাবো।’

নির্যাতিতা এক কিশোরীর বাবা বলেন, ‘ঘটনার পরও আমরা মানসম্মানের ভয়ে চুপ ছিলাম, কিন্তু ইন্টারনেটে দেয়ার কারণে সবাই এখন জেনে গেছে। তাই আইনের আশ্রয় নিয়ে ধর্ষকদের কঠোর শাস্তি দাবি করছি।’

জানা যায়, গত ১ বৈশাখ সকাল ১০টায় কিশোরীরা নববর্ষের আনন্দে নতুন সাজে পাশের গ্রামের আত্মীয়ের বাড়ি যাচ্ছিল। পথিমধ্যে চরশালেপুর গ্রামের বন্যা আশ্রয়কেন্দ্রে কাছাকাছি পৌছলে তিন মোটরসাইকেল নিয়ে পাঁচ যুবক তাদের জোরপূর্বক পাশের নির্জন ভূট্টা ক্ষেতের মধ্যে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষন করে। এসময় অন্যরা মোবাইলফোনে ধর্ষনের ভিডিওচিত্র ধারন করে।

পরে নির্যাতিত কিশোরীদের অভিভাবকের কাছে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদার টাকা না পেয়ে ধর্ষকরা ভিডিওচিত্র ইন্টারনেটে ছেড়ে দেয়।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts