ভারতের বিশ্বকাপ জয়ী ক্রিকেটার এখন জঙ্গি!

ভারতের বিশ্বকাপ জয়ী ক্রিকেটার হয়ে গেলেন জঙ্গি
Share Button

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে স্পট ফিক্সিংয়ের দায়ে ভুগতে হয়েছিল এই ভারতীয় ক্রিকেটারকে। হালে সেই স্মৃতিরোমন্থন করতে বসে সেই ক্রিকেটার জানাচ্ছেন, পুলিশ তাঁর সঙ্গে ঠিক জঙ্গির মতো আচরণ করেছে।

কে এই ক্রিকেটার? তিনি শান্তাকুমারণ শ্রীসন্থ। ২০১৩-য় রাজস্থান রয়্যালসের দুই সতীর্থ অজিত চাণ্ডিলা ও অঙ্কিত চৌহানের সঙ্গে শ্রীসন্থকেও গ্রেফতার করা হয়েছিল। পুলিশ জানিয়েছিল, মদ্যপ অবস্থায় ধরা পড়া শ্রীসন্থ ভেবেছিলেন সেই কারণেই বোধহয় তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। সম্প্রতি ডেনিস ফ্রিডম্যানকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন শ্রী। তিনি বলেছেন, ‘আমি মোটেও মাতাল ছিলাম না। আমি তখন চোট সারিয়ে ওঠার চেষ্টায় ছিলাম। পুলিশ গল্পটা বানিয়ে বলেছে। তাদের কাছে গ্রেফতারি পরোয়ানাও ছিল না। আমাকে বলা হয়েছিল দিল্লিতে প্রশ্ন করার জন্য নেওয়া হচ্ছে। বেটিংয়ের প্রসঙ্গও তোলেনি।’

দিল্লিতে যাওয়ার পরেই বুঝতে পারেন পরিস্থিতি অন্যরকম। শ্রীসন্থের চারপাশে প্রায় ৬০-৭০ জন কমান্ডো সেই সময়ে ছিল। কেরলের এই পেসারকে বুলেট-প্রুফ গাড়িতেও তোলা হয়। শ্রীসন্থ সেই সব দেখেশুনে বলেছেন, ‘এমন আচরণ করা হচ্ছিল যেন আমি একজন জঙ্গি।’  প্রায় মাসখানেক কয়েদির মতো জেলে থাকতে হয়েছে শ্রীসন্থকে। তিনি বলেন, ‘১২ দিন পর আমাকে তিহার জেলে পাঠানো হয়েছিল। ৪৫০ জন অপরাধীর সঙ্গে এক ডরমেটোরিতে রাখা হয়েছিল। ২৭ দিন জেলে ছিলাম, ভয়ঙ্কর সেই অভিজ্ঞতা।’

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts