মাদারীপুরে শিক্ষক হত্যাচেষ্টায় আটক ফাহিম ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

Crossfire
Share Button

মাদারীপুরের সরকারি নাজিমউদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীকে কুপিয়ে হত্যার সময় হাতেনাতে আটক গোলাম ফায়জুল্লাহ ফাহিম ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়েছেন।

শনিবার ভোর রাতে মাদারীপুরের বাহাদুরপুর ইউনিয়নের মিয়ারচরে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ তিনি নিহত হন। মাদারীপুরের পুলিশ সুপার সারওয়ার হোসেন জাগো নিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সারওয়ার হোসেন বলেন, ‘ফাহিমের দেয়া তথ্য অনুযায়ী শনিবার ভোর রাতে মিয়ারচর এলাকায় অভিযানে যায় পুলিশ। সেখানে যাওয়ার পর ফাহিমের সহযোগীরা তাকে ছিনিয়ে নিতে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়লে পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে। এ সময় গুলিবিদ্ধ হয়ে ফাহিম নিহত হন। বাকিরা পালিয়ে গেলেও ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়।’

শুক্রবার মাদারীপুরের চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ফাহিমকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ডের আদেশ দিয়েছিলেন।

এর আগে, বৃহস্পতিবার শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীকে হত্যাচেষ্টার ঘটনায় ফাহিমসহ ৬ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা আরো কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করেন মাদারীপুরের এসআই আইয়ুব আলী।

উল্লেখ্য, গত বুধবার (১৫ জুন) শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীকে কুপিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় জনতা ফাহিমকে হাতেনাতে ধরে পুলিশে দিয়েছিল। গোলাম ফয়জুল্লাহ ফাহিম নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিযবুত তাহরীরের সঙ্গে যুক্ত বলে পুলিশের দাবি। তিনি ঢাকার একটি কলেজ থেকে এবার এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছিলেন।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts