যে কারণে আত্মহত্যা করলেন পুলিশ কর্মকর্তা সোমন

আত্মহত্যা
Share Button

পারিবারিক কলহের জের ধরে আত্মহত্যা করেছেন পুলিশ কর্মকর্তা সোমন। শুক্রবার (১১ নভেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় পল্লবী থানা এলাকার ৮ নং রোডের ৫ নং বাড়ির ৪র্থ তলা থেকে উপ-পরিদর্শক (এসআই) সোমেন হাসনায়েন রব্বানীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। রব্বানী পুলিশের অপরাধ ও তদন্ত বিভাগে (সিআইডি) এসআই হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

জানা গেছে পরিবারের সাথে তার সম্পর্ক ভালো ছিল না। পারিবারিক কলহের জেরেই তিনি আত্মহত্যা করেছেন।
রব্বানী স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে ওই বাসায় ভাড়া থাকতেন। ছেলের বয়স ১১ বছর ও মেয়ের বয়স সাড়ে তিন বছর। তার গ্রামের বাড়ি যশোরের বেজপাড়ায়।

ঘটনার সময় তার বাসায় কেউ ছিল না। তার স্ত্রী ছেলে-মেয়েদের নিয়ে গত তিনদিন আগে বাপের বাড়ি যান। এই সুযোগে তিনি বাসার ড্রইং রুমে গামছা দিয়ে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলে আত্মহত্যা করেন।
মরদেহটির সুরতহাল প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, রব্বানীর শরীরের অন্য কোথাও কোন আঘাত বা জখমের চিহ্ন পাওয়া যায়নি।

মৃত্যুর বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্ত শেষে এ বিষয়ে বিস্তারিত জানা যাবে বলে জানান পল্লবী থানার এসআই সুলতান আলী

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts