রাতের পোশাক পরা অবস্থা রানির ফ্ল্যাট থেকে বের হতে দেখা যায় গোবিন্দকে!

গোবিন্দ ও রানী মুখার্জী

বলিউড অভিনেতা গোবিন্দ বৃহস্পতিবার ৫৪ বছরে পা দিলেন । স্ত্রী সুনীতা এবং দুই সন্তানকে নিয়ে যখন সুখের সংসার তাঁর, তখনই কোথাও উঁকি দিয়ে যায় তাঁর জীবনের বেশ কয়েকটি বিতর্কিত সম্পর্ক।

এবারের জন্মদিনেও তার ব্যতিক্রম হয়নি। নব্বইয়ের দশকে যখন দর্শকের হৃদয় জুড়ে রাজ করছেন ‘রাজাবাবু’, তখন কখনও গোবিন্দর সঙ্গে কখনও জড়িয়েছে নীলম-এর নাম আবার কখনও জড়িয়েছেন রানি মুখার্জি।

শোনা যায়, সুনীতার সঙ্গে বাগদান পর্বের পর নাকি নীলম-এর সঙ্গে পরিচয় হয় গোবিন্দার। প্রথম দেখাতেই নীলমের প্রতি অদ্ভূত টান অনুভব করেন গোবিন্দা। একটি সংবাদপত্রকে সাক্ষাত্কারে গোবিন্দা জানিয়েছিলেন, সাদা শর্টস পরে খোলা চুলে প্রথম দেখেছিলেন নীলমকে।

প্রথম দর্শনেই মুগ্ধ হয়েছিলেন তিনি। এমনকী, নীলমের নিন্দা শুনতে পারতেন না। একবার নীলমের সমালোচনা করায় সুনীতার ওপর ক্ষেপে গিয়েছিলেন গোবিন্দা। এমনকী, সুনিতার সঙ্গে আর সম্পর্ক রাখবেন না বলেও জানিয়েছিলেন।

পাশাপাশি তিনি চেয়েছিলেন নীলমকে বিয়ে করতে।
কিন্তু, মা রাজি হননি। সুনীতার সঙ্গেই গোবিন্দার বিয়ে হবে বলেও কথা দিয়েছিলেন তাঁর মা। মায়ের সেই কথা ফেলতে পারেননি বলেই শেষ পর্যন্ত সুনীতাকে বিয়ে করেন গোবিন্দ।

বিয়ের পর স্ত্রী, সন্তান নিয়ে বেশ ভালই সংসার করছিলেন গোবিন্দ, সেই সময় পরিচয় হয় রানি মুখার্জির সঙ্গে। ‘হদ করদি আপনে’-র সময় গোবিন্দর সঙ্গে সম্পর্কে জড়ান রানি। ওই সময় নবাগতা রানিকে বিভিন্ন পরিচালক, প্রযোজকদের সঙ্গে পরিচয় করাতে শুরু করেন গোবিন্দ।

রানির বাবা-মা কখনওই তাঁদের ওই সম্পর্ক মেনে নিতে পারেননি। গোবিন্দর স্ত্রী সুনীতাও স্বামীর বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কে প্রথমে কিছুই জানতেন না। ওই সময় এক সাংবাদিক রানির মুম্বাইয়ের ভারসোভার ফ্ল্যাটে যান। সেখানেই রানির ফ্ল্যাট থেকে রাতের পোশাক পরে গোবিন্দকে বের হতে দেখা যায়। যা নিয়ে ওই সময় জোর গুঞ্জন শুরু হয়ে যায়।

শোনা যায়, ওই সময় রানিকে দামি গাড়ি, হীরা এবং একটি বিলাসবহুলও ফ্ল্যাটও উপহার দিয়েছিলেন গোবিন্দ। তবে গোবিন্দর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে কখনওই প্রকাশ্যে মন্তব্য করেননি রানি মুখোপাধ্যায়। সূত্র-জিনিউজ

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts