খুনিকে চিনিয়ে দিল পথ কুকুর

খুনিকে চিনিয়ে দিল পথ কুকুর
Share Button

দেশের রাজধানী শহর। দিল্লির সঙ্গম বিহার অঞ্চলের ঘটনা। গত বুধবার, সকাল সাড়ে সাতটা। পথচারীদের নজর পড়ে একটি রক্তাক্ত বস্তার উপর। খবর যায় স্থানীয় থানায়। পুলিশ এসে রহস্যভেদ করে ওই বস্তার।

একটি ইংরেজি দৈনিকের রিপোর্ট অনুযায়ী, সঙ্গম বিহারের বাসিন্দা আনিস, তার স্ত্রী নার্গিস ও তাদের তিন সন্তান। প্রতিবেশীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গিয়েছে যে, স্বামী স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া ঝামেলা ছিল নিত্যদিনের সঙ্গী। আনিস হামেশাই নার্গিসকে মারধর করত বলে জানায় প্রতিবেশিরা। তবে, নার্গিসকে খুন করার কারণ নিজেই স্বীকার করেছে আনিস।

পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদের সামনে পেশায় রঙের কন্ট্রাকটর আনিস জানিয়েছে যে, বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের জেরেই সে খুন করে নার্গিসকে। সে অনেকবার সাবধান করেছিল নার্গিসকে, কিন্তু কোনও কথাই শোনেনি সে।

বস্তাবন্দি নার্গিসের দেহ গোপনে পথের ধারে ফেলে দেওয়ার তাল করেছিল আনিস। সেইমতো, সঙ্গম বিহারের একটি চার্চের কাছে বস্তাটি নিয়ে গিয়েছিল সে। কিন্তু, সেখানকার পথ-কুকুরদের চেঁচামেচি নজর কাড়ে আশপাশের মানুষের। ততক্ষণে অবশ্য বস্তা ফেলে পালিয়ে যায় আনিস। কিন্তু, শেষ রক্ষা হয়নি।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts