খাওয়ার পরে হাঁটবেন কেন?

শরীরের অতিরিক্ত মেদ ঝড়াতে
Share Button

ব্যায়ামের সব পদ্ধতির মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ আর কাজে লাগে এমন অংশটি হচ্ছে হাঁটা। আমাদের প্রায় সারাদিনই কাজের জন্য হাঁটতে হয়। এই রুম থেকে সেই রুম, বাসা থেকে অফিস কিংবা ভার্সিটিতে যাওয়া ইত্যাদি। তবে এই হাঁটার কিছু নির্দিষ্ট সময় আছে, যা কেবল সেই সময়ে করলেই আপনি হতে পারেন সু-স্বাস্থ্যর অধিকারী। সেরকমই একটি নির্দিষ্ট সময় হচ্ছে খাবার খাওয়ার পর। খাবার খাওয়ার পরে কিছুক্ষণ হাঁটাহাঁটি করলে আপনি পাবেন বেশকিছু উপকারিতা।

হজমে সাহায্য করে :

খাবার খাওয়ার পরে তা ঠিকঠাক হজম হচ্ছে না! এমন সমস্যা প্রায় সব মানুষেরই আছে। আর এর জন্য তাই নিজের সাথে অনেকেই এ্যান্টাসিড জাতীয় ঔষধ ওরাখেন। কিন্তু এই হজম হল শরীরের একটি স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। যার মাধ্যমে খাদ্য আপনার শরীরে বিভিন্ন ক্রিয়া বিক্রিয়া করে। তাই খাবারের পর আপনার শরীরে যদি ভারী ভারী ভাব অনুভূত হয় তবে আপনার উচিৎ না ঘুমিয়ে হাঁটার চেষ্টা করা। যা আপনার খাবার হজম করবে এবং বদহজম, বুক জ্বালাপোড়া করার মতো অসস্তি থেকে মুক্তি দেবে।

স্বাভাবিক শারীরিক ক্রিয়া ত্বরান্বিত হয় :

আমাদের মধ্যে অনেকেই ভাবেন খাবারের পর হাঁটা স্বাস্থ্যর জন্য ক্ষতিকর। কিন্তু খাওয়ার পর অল্প হাঁটা কিন্তু আপনার শরীরের বিপাকীয় ক্রিয়াকে ত্বরান্বিত করে। এটি আপনার শরীরের অতিরিক্ত মেদ ঝড়াতে সাহায্য করে। এবং শরীরের বাড়তি ক্যালরি পুড়িয়ে ফেলে।

ভালো ঘুম

সারা রাত ঘুম না হওয়ার সমস্যা আমাদের মধ্যে কম বেশি সবারই আছে। আর এর জন্য অনেকে ওষুধও খেয়ে থাকেন। সারা দিনের স্ট্রেস আর দুশ্চিন্তা আপনার ঘুম তাড়িয়ে দিতে যথেষ্ট। আর এই ব্যক্তিগত জীবনের নানা ঝামেলা আর কর্মক্ষেত্রের কাজের চাপ আমাদের নিশ্চিন্তে ঘুমাতে দেয় না। তবে এর সমাধান আছে। আপনি যদি রাতের খাবারের পর কিছুক্ষণ হাঁটেন তবে এটি আপনার রক্ত সঞ্চালন বাড়াতে সাহায্য করে যা মানসিক চাপ কমায় আর আপনার ঘুম আগের চেয়ে অনেকাংশে বেশি হয়।

রক্তে শর্করার পরিমাণ কম করে

খাবারের পর আধা ঘণ্টা হাঁটলে রক্তে শর্করার পরিমাণ অনেকাংশে নিয়ন্ত্রণে রাখা যায়। যারা ডায়াবেটিক জনিত রোগে ভুগছেন, তাদের অবশ্যই হাঁটা উচিৎ। যাদের ডায়াবেটিকস নেই, তারা হাঁটাহাঁটির মাধ্যমে নিজেকে রাখতে পারবেন ফিট আর সুস্বাস্থ্যর অধিকারী।

ওজন কমাতে সাহায্য করে

ওজন কমাতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজ করে হাঁটা। আমাদের সারাদিনের কাজের চাপে জিমে গিয়ে শরীরচর্চা করার তেমন সময় আমাদের দেয় না । তবে এই হাঁটাহাঁটি করেই আপনি বাড়তি ওজন খুব সহজেই কমাতে পারবেন। বাড়তি ক্যালরি ক্ষয় করে হাঁটাহাঁটি আপনাকে সুস্থ দেহ, সুন্দর মন অর্জনেও সহায়তা করবে।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts