যদি সুস্থ থাকতে চান, বেশি করে কাঁচা খাবার খান!

যদি সুস্থ থাকতে চান, বেশি করে কাঁচা খাবার খান
Share Button

আপনি যদি সুস্থ থাকতে চান, তাহলে বেশি করে কাঁচা খাবার খান! রান্না করা খাবারের তুলনায় কাঁচা খাবারে বেশি পুষ্টি রয়েছে। কাঁচা সবজি শরীরের প্রয়োজনীয় সবকিছুই পূরণ করে। এ কারণে শরীর তার সঠিক নিয়মে চলতে পারে।

সম্প্রতি এক গবেষণায় দেখা গেছে, দিনের মোট খাবারের তিন চতুর্থাংশ যদি কাঁচা খাবার খাওয়া যায়, তাহলে শরীর ভিতর এবং বাইরে থেকে স্বাস্থ্যকর হয়ে ওঠে। যখনই আমরা খাবার রান্না করি তখন সেই খাবারের বেশিরভাগ নিউট্রিয়েন্টস এবং এনজাইম নষ্ট হয়ে যায়। বাকি যেটুকু পরে থাকে তাই দিয়ে শরীর গঠিত হয়।

তবে খাবার কাঁচা খেলে নিউট্রিয়েন্টস পুরো মাত্রায় আমাদের শরীরে প্রবেশ করতে পারে, এতে শরীর আরো সুস্থ থাকবে। এছাড়া কাঁচা খাবারের আর কী কী উপকারিতা রয়েছে তা নিম্নে আলোচনা করা হলো-

১) কাঁচা খাবার নিউট্রিয়েন্টস এবং এনজাইমগুলি আমাদের হজম ক্ষমতার উন্নতি ঘটায়।

২) সবজি কাঁচা খেলে নানা রকমের ক্রনিক ডিজিজের সঙ্গে লড়ে, মাথা যন্ত্রণা কমায়, অ্যালার্জি দূর করে, শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

৩) এতে স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধি পায়।

৪) আর্থারাইটিস এবং ডায়াবেটিস রোগের প্রকোপ কমাতেও কাঁচা খাবার বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

৫) কাঁচা খাবারে নানা ধরনের ক্ষতিকর টক্সিন, যেমন : কার্সিনোজেন বাসা বাঁধতে পারে না। ফলে নানা মরণ রোগের হাত থেকে শরীর রক্ষা পায়।

৬) কাঁচা খাবার খেলে শর্করা খাওয়ার ইচ্ছা কমে যায়। তাই তো বিশেষজ্ঞরা কাঁচা খাবারকে পরিবেশ বান্ধব খাবার হিসেবে বিবেচনা করেছেন।

৭) কাঁচা খাবার উৎপন্ন হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই বাজারে চলে আসে এবং আমরা তা কিনে এনে খাই। ফলে ক্ষতিকর কার্বোন-ডাই-অক্সাইডের মাত্রা এগুলিতে কম থাকে।

সাবধানতা : কাঁচা খাবার কখনোই প্রেগনেন্ট নারী, বাচ্চা এবং বয়স্কদের খাওয়ানো চলবে না। কারণ এদের পক্ষে এমন খাবার হজম করা কষ্টকর। কাঁচা খাবারে তাদের ফুড পয়জনিংয়েরও আশঙ্কা থাকে।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts