সকালের নাস্তায় কোনটা খাবেন, নোনতা না মিষ্টি? জেনে নিন দুটি খাবারের রেসিপি

সকালের নাস্তায় কোনটা খাবেন

বাঙালির মন মিষ্টির জন্য সর্বদাই উদগ্রীব। তবে শুধু নরমপাক-কড়াপাক নয়, অন্য স্বাদের মিষ্টির রেসিপিও হাজির। অল্প সময়ে চটজলদি বানিয়ে ফেলতে পারেন এই মুখে-জল-আনা ডেজার্ট। তার সঙ্গে রইল মুখরোচক পদের হদিসও।

এগলেস ব্যানানা চকোলেট মুজ

উপকরণ
তিনটে মাঝারি মাপের পাকা কলা
১৫০ গ্রাম চকোলেট
এক টেবিল চামচ কফি
আধ চা-চামচ দারচিনি গুঁড়ো
এক কাপ ক্রিম
এক টেবিল চামচ চিনি

প্রণালী
একটা প্যানে চকোলেট নিয়ে তার মধ্যে এক টেবিল চামচ ক্রিম এবং প্রয়োজনমতো জল মিশিয়ে চকোলেটগুলো গলিয়ে নিন। প্যান থেকে নামিয়ে মেল্টেড চকোলেট ঠান্ডা করুন। এবার ব্লেন্ডারে কলার টুকরো, কফি এবং দারচিনি গুঁড়ো মিশিয়ে স্ম্যাশ করুন। তার মধ্যে ক্রিম এবং চিনি মেশান। শেষে মেল্টেড চকোলেট দিয়ে পুরোটা ভাল করে মিশিয়ে নিন। ছোট ছোট কাচের গ্লাস কিংবা বাটিতে সমপরিমাণে ঢেলে পরিবেশন করুন।

২।ট্রাফল কাস্টার্ড

উপকরণ
একটা ছোট এগলেস স্পঞ্জ কেক
আড়াই কাপ বিভিন্ন ধরনের ফলের টুকরো
দেড় কাপ দুধ
তিন টেবিল চামচ কাস্টার্ড পাউডার
আধ চা-চামচ ভ্যানিলা এসেন্স
চার টেবিল চামচ চিনি
পাঁচ টেবিল চামচ যে কোনও ফলের রস
আধ কাপ ক্রিম

প্রণালী
প্রথমে একটা ছোট পাত্রে তিন টেবিল চামচ দুধ, কাস্টার্ড পাউডার মিশিয়ে হালকা গরম করে পেস্ট বানিয়ে রাখুন। অন্য একটা প্যানে বাকি দুধের সঙ্গে চিনি মিশিয়ে ফোটান। দুধ একটু ঘন হয়ে এলে তার মধ্যে কাস্টার্ড পেস্ট মেশান। ভাল করে নেড়ে ঘন কাস্টার্ড বানান। একটা পাত্রে ক্রিম, ভ্যানিলা এসেন্স মিশিয়ে ভাল করে নাড়ান। এবার তার মধ্যে সব ধরনের ফলের টুকরোগুলো মেশান। কেকটাকে ছোট কিউবের আকারে কাটুন। মাঝারি মাপের কাচের গ্লাসে প্রথমে কয়েকটা কেকের টুকরো দিয়ে তার উপরে ফলের রস দিয়ে  টুকরো ফলগুলো দিন। শেষে কাস্টার্ড দিন। এভাবে আরও একটি কিংবা দু’টি স্তর তৈরি করে উপর দিয়ে কয়েকটা ফলের টুকরো ছড়িয়ে পরিবেশন করুন।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts