যে কারণে পুরুষ দিবস চান রওশন!

এরশাদকে বর্জনের ডাক রওশনের

পুরুষ দিবস চান জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ। বৃহস্পতিবার সংসদের দশম অধিবেশনের সমাপনী বক্তব্যে তিনি বলেন, “একশ বছর হয়ে গেছে, এখনও নারী দিবস পালন করে যাচ্ছি। সেদিন কবে আসবে, যেদিন পুরুষ দিবস দেখতে পাব?”

প্রতিবছর ৮ মার্চ আন্তর্জাতিক নারী দিবস হিসেবে পালন করা হয়।

জাতীয় পার্টির নতুন জ্যেষ্ঠ কো-চেয়ারপারসন আরও বলেন, “প্রতিবছর নারী দিবস পালন করা হচ্ছে। নানান পরিকল্পনা ও ঘোষণা দেওয়া হয়। কিন্তু কিছুই বাস্তবায়ন হয় না। এখনও নারীদের যৌতুকের জন্য প্রাণ দিতে হচ্ছে।

“যৌতুকের বিরুদ্ধে আইন আছে। কিন্তু তার প্রয়োগ নেই। নারীরা শ্বশুর বাড়িতে নারী-পুরুষ সবার দ্বারাই নির্যাতিত হচ্ছে।।”

শ্রমিকদের ন্যূনতম বেতন ১৮ হাজার টাকা এবং সাংবাদিকদের জন্য নবম ওয়েজবোর্ড গঠনের দাবি জানিয়ে রওশন এরশাদ বলেন, “বেতন বাড়ানো হলে শ্রমিক ও সাংবাদিকদের সুযোগ-সুবিধা বাড়বে। সাংবাদিকরা অনেক কষ্ট করে সংবাদ সংগ্রহ করে। একদিন সংবাদ সংগ্রহ করতে না পারলে তারা হয়তো টাকাও পায় না।”

রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (রাজউক) পূর্বাচল উপ-শহরে সংসদ সদস্যদের প্লট বরাদ্দ দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে বিরোধীদলীয় নেতা বলেন, “এমপিরা অনেকেই বাড়ি করার জন্য প্লট পাননি। পূর্বাচলে অনেক জায়গা আছে। এমপিদের বরাদ্দ দেওয়া হোক। সংসদ সদস্যদের সম্মান দিতে হবে।”

খাদ্যে ভেজাল রোধ এবং কর্মসংস্থান তৈরিতে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবিও জানান তিনি।

এছাড়া নদী দূষণসহ রাজধানীর যানজট নিরসনে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন রওশন এরশাদ।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts