স্মৃতি ফিরে পেয়েছেন নার্গিস

Khadiza akter Nargis
Share Button

সিলেটে ছাত্রলীগ নেতা বদরুলের চাপাতির কোপে গুরুতর আহত কলেজছাত্রী খাদিজা আক্তার নার্গিস স্মৃতি ফিরে পেয়েছেন এবং এখন অনেকটাই সুস্থ আছে বলে জানিয়েছেন খাদিজার বাবা মাসুক মিয়া।

তিনি আরো জানান, সে সবাইকে চিনতে পারছে, স্বাভাবিকভাবে দু-একটি কথাও বলতে পারছে।

মাসুক মিয়া বলেন, সে ঠিকভাবে বাবা-মা বলতে পারছে। সবাইকে চিনতে পারছে। দু-একটি করে স্বাভাবিক কথাও বলতে পারছে। সবার সার্বিক সহযোগিতায় এটা সম্ভব হয়েছে।

চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে তিনি বলেন, হয়তো এ মাসের শেষে তাকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেয়া হবে। তবে হাত ও পায়ের উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে সিআরপিতে নেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা।

এ প্রসঙ্গে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালের ক্রিটিক্যাল কেয়ার মেডিসিন বিভাগের পরিচালক ডা. মির্জা নাজিম উদ্দিন বলেন, খাদিজা এখন অনেকটাই সুস্থ। সে প্রতিদিনই একটু একটু করে সুস্থ হচ্ছে। আমরা তাকে ডিসচার্জ করার কথা ভাবছি। তবে এ বিষয়ে এখনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। খাদিজার অগ্রগতি সম্পর্কে অচিরেই মিডিয়াকে আনুষ্ঠানিকভাবে জানানো হবে।

প্রসঙ্গত, গত ৩ অক্টোবর সিলেট এমসি কলেজে ডিগ্রি দ্বিতীয় বর্ষের পরীক্ষা শেষে বের হলে খাদিজা আক্তার নার্গিসকে চাপাতি দিয়ে উপর্যুপরি কুপিয়ে আহত করে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগ নেতা বদরুল আলম।

এরপর প্রথমে তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় আনা হয়। তারপর থেকে খাদিজা রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এখানে কয়েক ধাপে তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে অস্ত্রোপচার করা হয়। চিকিৎসকদের দীর্ঘমেয়াদি নিবিড় চিকিৎসা ও পরিচর্যায় ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন তিনি।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts