দ্বিতীয় বারের মত অবৈধ বোলিং অ্যাকশনে অভিযুক্ত আল-আমিন

আল-আমিন হোসেন
Share Button

আরো একবার অবৈধ বোলি অ্যাকশনের দায়ে অভিযুক্ত হয়েছেন জাতীয় দলের ডানহাতি পেসার আল-আমিন হোসেন। বিপিএলের পঞ্চম আসরে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসের হয়ে খেলছেন আল-আমিন।

খুলনা টাইটানসের বিপক্ষে তার বোলিং অ্যাকশন নিয়ে আম্পায়ারা সন্দেহ পোষণ করে ম্যাচ রেফারির কাছে রিপোর্ট করেছেন।

গত ২৮ নভেম্বর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরি স্টেডিয়ামে খুলনা টাইটানসের বিপক্ষে ইনিংসের ১৫তম ওভারে কুমিল্লার হয়ে বোলিংয়ে আসেন আল-আমিন। আর ওই ওভারেই তার বোলিং অ্যাকশন নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেন অন-ফিল্ড দুই আম্পায়ার বাংলাদেশের নাদির শাহ ও পাকিস্তানের রিয়াজউদ্দিন।

আইসিসির আইন অনুযায়ী আগামী ১৪ দিনের মধ্যে বিসিবির বোলিং অ্যাকশন রিভিউয়ের মুখোমুখি হতে হবে আল-আমিনকে। ওই সময়ের আগ পর্যন্ত খেলা চালিয়ে যেতে পারবেন তিনি। আগামী ১২ ডিসেম্বর বিপিএলের ফাইনাল। তাই বিপিএলের শেষ পর্যন্ত তার খেলা চালিয়ে যেতে সমস্যা নেই।

বিপিএলের টেকনিক্যাল কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘খুলনা টাইটানসের বিপক্ষে খেলার সময় আল-আমিনের বোলিং অ্যাকশন নিয়ে রিপোর্ট করা হয়েছে। তবে আগামী ১৪ দিন তার বোলিং করতে কোনো বাধা নেই।

আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী তার বোলিং অ্যাকশন পর্যবেক্ষণ করা হবে। যদি কোনো সমস্যা পাওয়া যায়, তবে তাকে পুনর্বাসন প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত হবে। তারপর তার অবস্থা পর্যবেক্ষণ করে আমরা সিদ্ধান্ত জানাব। ‘

এর আগে ২০১৪ সালের আগস্টে বোলিং অ্যাকশন নিয়ে সন্দেহের তালিকায় পড়েছিলেন আল-আমিন। তবে চেন্নাইয়ে আইসিসির অনুমোদিত পরীক্ষাগারে পরীক্ষা দিয়ে নভেম্বরে ত্রুটিমুক্ত হন তিনি।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts