বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন পদত্যাগ করবেন?

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। পাশাপাশি দেশের অন্যতম কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান বেক্সিমকো গ্রুপের শীর্ষ কর্মকর্তা এবং জাতীয় সংসদের একজন সদস্যও। একসঙ্গে তিনটি দায়িত্ব পালন করে রীতিমতো যান্ত্রিক জীবনযাপন করছেন তিনি। তাই আভাষ দিলেন এবার হয়তো কিছু একটা ছাড়তে যাচ্ছেন তিনি। হয়তো বা সেটা বিসিবির সভাপতি পদই।

আগের দিন আইসিসির বার্ষিক সভা শেষে বাংলাদেশে ফেরেন পাপন। একদিন না যেতে আজই যেতে হচ্ছে ভারতে। হায়দারাবাদে ভারতের বিপক্ষে ঐতিহাসিক টেস্টের জন্যই যেতে হচ্ছে তাকে। সেখান থেকে ফিরে পেশাগত কাজে আবার যেতে হবে দেশের বাইরে। তাই টানা কাজের ভারে কিছুটা হলেও ক্লান্ত পাপন।

সোমবার নিজের কর্মস্থলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনের ক্লান্তির কথা জানিয়ে বললেন, ‘বিসিবি সভাপতির কাজটা উপভোগ করি। তবে চাকরি ও সংসদ সদস্য হিসেবে কাজটা কঠিন হয়ে গেছে। পরিবার থেকেও বলছে তিনটা কাজ করা অসম্ভব। আমার দায়িত্ব আছে আর ছয় মাস। এরপর এর মধ্য থেকে একটা ছাড়তে হবে।’

ভৈরব-কুলিয়ারচর (কিশোরগঞ্জ-৬) এলাকার সংসদ সদস্য নাজমুল হোসেন। একজন সংসদ সদস্য হিসেবে নিজ এলাকায় তার দায়িত্বও অনেক। তবে বিসিবি সভাপতির দায়িত্বের পাশাপাশি চাকরির কারণে তাতে সময় দিতে পারছেন না পাপন।

‘আমি চাকরি করি আবার একটি এলাকার সংসদ সদস্যও। আমাকে সংসদে যেতে হয়। কিন্তু বিসিবি সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে আমি সংসদে যেতে পারছি না। আর এলাকার কাজে একদমই সময় দিতে পারছি না। চাকরিতে আগে যে পরিমাণ সময় দিতাম, এখন তার অর্ধেকও সময় দিতে পারি না।’

চলতি বছরের শেষদিকে নির্বাচনের মাধ্যমে ঠিক হবে নতুন বোর্ড সভাপতি ও নির্বাহী পর্ষদ। সে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন কি-না জানতে চাইলে নেতিবাচক মনোভাবই দেখান পাপন।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts