মুশফিকের সেঞ্চুরির পরও হারলো দল

মুশফিকের সেঞ্চুরির পরও হারলো দল
Share Button

ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে হেরে গেছে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব।

বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাদা জার্সির অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমের দুর্দান্ত সেঞ্চুরির পরও অন্যান্য ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় হার মানতে বাধ্য হয় সাদা-কালো শিবির।

মুমিনুল হক ও নাদিফ চৌধুরীর হাফ সেঞ্চুরিতে ভিক্টোরিয়া স্পোর্টিং ক্লাবের কাছে দুই উইকেটে হারে ঢাকার ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটি।

মোহামেডানের দেওয়া ২৪৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুতেই ফজলে মাহমুদকে হারায় ভিক্টোরিয়া।

তবে দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে আরেক ওপেনার আব্দুল মজিদকে নিয়ে দলের হাল ধরেন মুমিনুল হক।

এ জুটি দলের পক্ষে ১১৪ রান সংগ্রহ করেন। দলীয় ১২২ রানে মজিদকে তুলে নেবার ৬ রান পর মুমিনুলকেও আউট করে খেলায় ফিরে আসে মোহামেডান।

৬৯ বলে ৭টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে সর্বোচ্চ ৬৭ রান করেন মুমিনুল। এছাড়া মজিদ ৮০ বলে ৫৫ রান করেন।

এরপর চতুর্থ উইকেটে ৬১ রানের জুটি গড়ে জয়ের ভিত গড়ে দেন আল-আমিন ও লঙ্কান ব্যাটসম্যান চতুরঙ্গ ডি সিলভা। এ দুই ব্যাটসম্যানের পর দ্রুত আরও তিনটি উইকেট নিয়ে খেলা জমিয়ে তোলে মোহামেডান।

তবে একপ্রান্তে অধিনায়ক নাদিফ চৌধুরীর দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে ৪৮.৪ ওভারে জয়ের বন্দরে পৌঁছায় ভিক্টোরিয়া। ৩৯ বলে ৩টি চার ও ৪টি ছক্কার সাহায্যে ৫১ রানে অপরাজিত থাকেন নাদিফ।

মোহামেডানের পক্ষে হাবিবুর রহমান, এনামুল হক জুনিয়র ও নাঈম ইসলাম ২টি করে উইকেট নেন।

এর আগে বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে মোহামেডান।

তবে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরু থেকেই চাপে পড়ে তারা। দলীয় ৬২ রানে শীর্ষ চার ব্যাটসম্যানের উইকেট হারিয়ে বিপর্যয়ে পরে মতিঝিলের ক্লাবটি।

এরপর ফয়সাল হোসেনকে নিয়ে দলের হাল ধরেন মুশফিকুর রহিম।

শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২৪৭ রানে থামে মোহামেডানের ইনিংস। একপ্রান্তে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে ১০৮ বলে ১০৪ রান করেন মুশফিক। ৪টি চার ও ৫টি ছক্কার সাহায্যে এ রান করেন তিনি।

শেষদিকে আরিফুল হকের ৪২ রানে লড়াকু সংগ্রহ পায় মোহামেডান। ৩৫ বলে ২টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে এ রান করেন তিনি। এছাড়া ফয়সাল করে ২৬ রান। ভিক্টোরিয়ার পক্ষে সোহওয়ার্দি শুভ ২৯ রানে ৪ উইকেট নেন।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts