রাজধানীতে তালাক দেয়ায় ব্যাংকার স্ত্রীকে খুন

Murder
Share Button

রাজধানীর সেন্ট্রাল রোডে আরিফুল নেছা আরিফা (২৭) নামে যমুনা ব্যাংকের এক কর্মীকে প্রকাশ্যে ছুরিকাঘাতে হত্যা করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে সেন্ট্রাল রোডের আইডিয়াল কলেজের কাছে এ ঘটনা ঘটে।

আরিফা যমুনা ব্যাংকের পুরানা পল্টন শাখায় কর্মরত ছিলেন।

নিহতের স্বজনেরা এ হত্যাকাণ্ডে আরিফার সাবেক স্বামী রবিনকে দায়ী করেছেন।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির এসআই মো. বাচ্চু মিয়া জানান, সকালে রক্তাক্ত অবস্থায় আরিফা নামের ওই নারীকে হাসপাতালে আনা হয়। তার ঘাড়, বুক ও হাতে ধারালো অস্ত্রের আঘাত ছিল।

তিনি জানান, দুপুর ১২টার দিকে অপারেশন থিয়েটারে নেয়ার পর আরিফা মারা যান।

আরিফার ভাই বুলবুল জানান, পুরানা পল্টনে কর্মস্থলে যাওয়ার জন্য সকাল ৮টার দিকে আরিফা বাসা থেকে বের হয়ে সেন্ট্রাল রোডের আইডিয়াল কলেজ এলাকায় অপেক্ষা করছিল।

এ সময় তাকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায় রবিন। পরে তাকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়।

নিহতের ভাইয়ের ভাষ্যে, চার বছর আগে প্রেম করে বিয়ে করে আরিফা ও রবিন। কিন্তু ছয় মাস আগে তাদের মধ্যে বিচ্ছেদ হয়। তাদের দু’জনের বাড়িই জামালপুরে।

তালাক দেয়ার কারণেই ক্ষিপ্ত হয়ে রবিন আরিফাকে খুন করে বলে অভিযোগ বুলবুলের।

তিনি আরও জানান, দেড় বছর ধরে আরিফা যমুনা ব্যাংকে চাকরি করছে। আর তালাকের পর থেকে মাকে নিয়ে সেন্ট্রাল রোডে বসবাস করতো।
 

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts