শাকিব খানকে নিয়ে কেন বুবলী-অপুর বিরোধ?

শাকিব খানকে নিয়ে কেন বুবলী-অপুর বিরোধ?
Share Button

একদিকে অপু বিশ্বাস আর অন্যদিকে চলচ্চিত্রের উদীয়মান তারকা শবনম বুবলি। মাঝখানে ঢাকাই চলচ্চিত্রের শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। এক নায়ককে নিয়েই চলছে দুই নায়িকার দ্বন্দ্বমুখর বিচরণ।

অজানা এক কারণে অপু বিশ্বাস আড়ালে হারানোর পরই ‘বসগিরি’ ছবির জন্য নতুন নায়িকা হিসেবে শাকিবের বিপরীতে নেয়া হয় নবাগত বুবলিকে। এরপর ‘শুটার’ ছবিতেও শাকিবের নায়িকা হন তিনি।

শাকিবের বিপরীতে একসঙ্গে দুটি ছবি মুক্তি পেলে চলচ্চিত্রপাড়ায় রাজকীয় অভিষেক হয় তার। অপুর অনুপস্থিতে পর্দায় শাকিব-বুবলির রোমান্স বেশ উপভোগ করেন দর্শকরা। গুঞ্জন উঠে, পর্দার বাইরেও রোমান্স রয়েছে তাদের। আরও কথা উঠে শাকিব খানের ইশারাতেই চিত্রপাড়ায় উঠ-বস করেন বুবলি। যা চলছে এখনও। এমন সময় আড়াল ভেঙ্গে হুট করেই সামনে আসার ইঙ্গিত দেন অপু বিশ্বাস।

জানান, আড়াল হওয়ার গল্প শিগগিরই গণমাধ্যমের সামনে এসে খুলে বলবেন। কিন্তু না, ঘোষণার কয়েক মাস কেটে গেলে এখনও দেখা মিলেনি তার।

অন্যদিকে শাকিব খানের সঙ্গে সম্প্রতি ‘অহংকার’ নামের একটি ছবির শুটিং শেষ করেছেন বুবলি। শোনা যাচ্ছে ‘বসগিরি টু’ নির্মাণ করা হবে। আর তাতে নায়িকা হিসেবে নেয়া হবে অপু বিশ্বাসকে।

মূলত বুবলি এবং অপু দুইজনই বর্তমানে শাকিব খানের ইশারাতেই চলছেন বলে জানা গেছে। দু’জনই শাকিব খানের আলোয় নিজেদের উজ্জ্বল রেখেছেন। দারুণ সিনেম্যাটিক একটি ব্যাপার।

তাই স্বভাবতই প্রশ্ন উঠছে, শাকিব তুমি কার? বুবলি না অপুর। এদিকে ফোন করে বুবলিকে অকথ্য ভাষায় শাসিয়েছেন অপু। বিষয়টিও নতুন আলোচনার জন্ম দিয়েছে।

আগামী ঈদের ছবিতে শাকিব খানের নায়িকা হিসেবে থাকবেন বুবলি এমন সংবাদে ক্ষেপে গিয়ে বুবলিকে শাসিয়েছেন অপু বিশ্বাস- এমনটাই ঢালিউডের বাতাসে ভেসে বেড়াচ্ছে। কারণ অপু বিশ্বাসের দাবি বুবলি নয়, তাকে নিয়ে শাকিবের আগামী পরিকল্পনা চলছে।

এ ছাড়াও সম্প্রতি বুবলি শাকিব খানের সঙ্গে ফেসবুকে একটি ছবি দিয়ে ক্যাপশনে লিখেছেন ‘ফ্যামিলি টাইম’। এ কারণেও অপু বিশ্বাস চটেছেন বলে গণমাধ্যমকে বলেছেন। সবকিছু ছাপিয়ে আগামী ঈদে দুই নায়িকার মধ্যে কাকে নিয়ে দর্শকের সামনে হাজির হবেন শাকিব খান? এ নিয়ে অপু ও শবনম বুবলির লড়াই এখন চরমে।

তবে আগামী দুই বছর যৌথ প্রযোজনার বাইরে নতুন কোনো ছবির শিডিউল নেই শাকিব খানের। তাই তাদের প্রতিযোগিতা কোন দিকে মোড় নিবে সেটাই এখন দেখার বিষয়। কারণ দুই বছর কিংখানের শিডিউল না থাকলে আগামী দুই বছর এ দুই নায়িকার কেউ শাকিব খানকে আর ছবিতে পাচ্ছেন না।

তবে বুবলি ‘অহংকার’ আর অপু বিশ্বাস ‘রাজনীতি’ নিয়ে লড়াইয়ে নামতে পারেন। যা এখনও নিশ্চিত নয়।
একদিকে অপু বিশ্বাস আর অন্যদিকে চলচ্চিত্রের উদীয়মান তারকা শবনম বুবলি। মাঝখানে ঢাকাই চলচ্চিত্রের শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। এক নায়ককে নিয়েই চলছে দুই নায়িকার দ্বন্দ্বমুখর বিচরণ।

অজানা এক কারণে অপু বিশ্বাস আড়ালে হারানোর পরই ‘বসগিরি’ ছবির জন্য নতুন নায়িকা হিসেবে শাকিবের বিপরীতে নেয়া হয় নবাগত বুবলিকে। এরপর ‘শুটার’ ছবিতেও শাকিবের নায়িকা হন তিনি।

শাকিবের বিপরীতে একসঙ্গে দুটি ছবি মুক্তি পেলে চলচ্চিত্রপাড়ায় রাজকীয় অভিষেক হয় তার। অপুর অনুপস্থিতে পর্দায় শাকিব-বুবলির রোমান্স বেশ উপভোগ করেন দর্শকরা। গুঞ্জন উঠে, পর্দার বাইরেও রোমান্স রয়েছে তাদের। আরও কথা উঠে শাকিব খানের ইশারাতেই চিত্রপাড়ায় উঠ-বস করেন বুবলি। যা চলছে এখনও। এমন সময় আড়াল ভেঙ্গে হুট করেই সামনে আসার ইঙ্গিত দেন অপু বিশ্বাস।

জানান, আড়াল হওয়ার গল্প শিগগিরই গণমাধ্যমের সামনে এসে খুলে বলবেন। কিন্তু না, ঘোষণার কয়েক মাস কেটে গেলে এখনও দেখা মিলেনি তার।

অন্যদিকে শাকিব খানের সঙ্গে সম্প্রতি ‘অহংকার’ নামের একটি ছবির শুটিং শেষ করেছেন বুবলি। শোনা যাচ্ছে ‘বসগিরি টু’ নির্মাণ করা হবে। আর তাতে নায়িকা হিসেবে নেয়া হবে অপু বিশ্বাসকে।

মূলত বুবলি এবং অপু দুইজনই বর্তমানে শাকিব খানের ইশারাতেই চলছেন বলে জানা গেছে। দু’জনই শাকিব খানের আলোয় নিজেদের উজ্জ্বল রেখেছেন। দারুণ সিনেম্যাটিক একটি ব্যাপার।

তাই স্বভাবতই প্রশ্ন উঠছে, শাকিব তুমি কার? বুবলি না অপুর। এদিকে ফোন করে বুবলিকে অকথ্য ভাষায় শাসিয়েছেন অপু। বিষয়টিও নতুন আলোচনার জন্ম দিয়েছে।

আগামী ঈদের ছবিতে শাকিব খানের নায়িকা হিসেবে থাকবেন বুবলি এমন সংবাদে ক্ষেপে গিয়ে বুবলিকে শাসিয়েছেন অপু বিশ্বাস- এমনটাই ঢালিউডের বাতাসে ভেসে বেড়াচ্ছে। কারণ অপু বিশ্বাসের দাবি বুবলি নয়, তাকে নিয়ে শাকিবের আগামী পরিকল্পনা চলছে।

এ ছাড়াও সম্প্রতি বুবলি শাকিব খানের সঙ্গে ফেসবুকে একটি ছবি দিয়ে ক্যাপশনে লিখেছেন ‘ফ্যামিলি টাইম’। এ কারণেও অপু বিশ্বাস চটেছেন বলে গণমাধ্যমকে বলেছেন। সবকিছু ছাপিয়ে আগামী ঈদে দুই নায়িকার মধ্যে কাকে নিয়ে দর্শকের সামনে হাজির হবেন শাকিব খান? এ নিয়ে অপু ও শবনম বুবলির লড়াই এখন চরমে।

তবে আগামী দুই বছর যৌথ প্রযোজনার বাইরে নতুন কোনো ছবির শিডিউল নেই শাকিব খানের। তাই তাদের প্রতিযোগিতা কোন দিকে মোড় নিবে সেটাই এখন দেখার বিষয়। কারণ দুই বছর কিংখানের শিডিউল না থাকলে আগামী দুই বছর এ দুই নায়িকার কেউ শাকিব খানকে আর ছবিতে পাচ্ছেন না।

তবে বুবলি ‘অহংকার’ আর অপু বিশ্বাস ‘রাজনীতি’ নিয়ে লড়াইয়ে নামতে পারেন। যা এখনও নিশ্চিত নয়।

 

লেখাটি পছন্দ হলে প্লিজ Share করুন

এ সম্পর্কিত আরও সংবাদ :

Related posts